ভারতকে ভেন্টিলেটর সহ অন্যান্য চিকিৎসা সরঞ্জাম ক্রয় করতে দশ মিলিয়ন মার্কিন ডলার অনুদান দিয়েছে কানাডা সরকার।

কোভিডের দ্বিতীয় ঢেউয়ে বিপর্যস্ত ভারতের সাহায্যে এগিয়ে আসতে কানাডীয় জনসাধারণকে উদ্বুদ্ধ করেছেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো। গত ৩১ মে, সোমবার, কানাডার জনপ্রিয় চ্যানেল ‘এন্টারটেইনমেন্ট টুনাইট কানাডা (ইটি কানাডা)’ -কে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে এ আহবান জানান তিনি।



ট্রুডো বলেন, “কানাডিয়ানরা বিশ্বের অধিক ঝুঁকিপূর্ণ দেশগুলোকে উপেক্ষা করতে পারেনা এবং যেকোনো উপায়ে তাঁদের সহায়তা করবে।… আমাদের দেশের কিছু অংশে এখনও করোনা আক্রান্তের খবর পাওয়া যাচ্ছে। এমনকি সে সংখ্যা আমাদের ধারণার চেয়েও বেশি। আইসিইউ গুলো আর ফাঁকা নেই। কিন্তু তা সত্ত্বেও বিশ্বজুড়ে অন্যদের সাহায্য করার মতো প্রয়োজনীয় উপায় আমাদের রয়েছে বলে বিশ্বাস করি।”



ভারতে পর্যাপ্ত অক্সিজেন সরবরাহ না থাকায় লোকজন প্রাণ হারিয়েছে। এমন খবরে নিজের অনুভূতি ব্যক্ত করতে গিয়ে প্রধানমন্ত্রী ট্রুডো বলেন, “এটা ভীষণ হৃদয়বিদারক এক ঘটনা। আমরা এমন ট্র্যাজেডি আর দেখতে চাইনা।”



এসময়, ভারতকে ভেন্টিলেটর সহ অন্যান্য চিকিৎসা সরঞ্জাম ক্রয় করতে দশ মিলিয়ন মার্কিন ডলার অনুদান দিয়েছেন বলে স্মরণ করিয়ে দেন ট্রুডো।



তাছাড়া, ২০২০ সালে ট্রুডোর স্ত্রী সোফি ট্রুডো করোনা আক্রান্তের সময়কে ভয়ানক অভিজ্ঞতা আখ্যা দিয়ে, সে অভিজ্ঞতা বাস্তব জীবনে অন্যদের মূল্যবোধ বুঝতে কাজ লেগেছে বলে জানিয়েছেন কানাডার প্রধানমন্ত্রী।



প্রসঙ্গত, সম্প্রতি করোনা ভ্যাকসিনের প্রথম ডোজ গ্রহণ করেছেন ট্রুডো এবং সকল কানাডীয় নাগরিককে এটি গ্রহণের আহবান জানান তিনি।