বিশ্বব্যাপী নানান ইস্যুতে যুক্তরাষ্ট্র ও ভারতের মধ্যে ঘনিষ্ঠ সম্পর্কের গুরুত্ব তুলে ধরেছেন শেরম্যান।

ভারতীয় পররাষ্ট্রমন্ত্রী এস জয়শঙ্করের সঙ্গে বৈঠক করেছেন মার্কিন পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী ওয়েন্ডি শেরম্যান। ০৭ অক্টোবর, বৃহস্পতিবার, নয়াদিল্লীতে উক্ত বৈঠকটি অনুষ্ঠিত হয়। বৈঠকে আফগানিস্তান, চীন, ইরান, রাশিয়া, মায়ানমার এবং বৈশ্বিক নিরাপত্তা ইস্যুতে বিস্তারিত আলোচনা হয়েছে বলে জানিয়েছেন মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তরের মুখপাত্র নেড প্রাইস।



আলোচনাকালে মায়ানমারে গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনার ব্যাপারে মতবিনিময় করেন দুই নেতা। পাশাপাশি আফগানিস্তানে যেনো কোনোভাবেই সন্ত্রাসবাদীরা সুবিধা আদায় না করতে পারে, সে বিষয়েও কথা হয় দুজনের। একই সঙ্গে মধ্য এশীয় অঞ্চল নিয়ে সমূহ আলোচনা করেন তাঁরা।



আলোচনাকালে জয়শঙ্করের নিকট ভারতীয় নিরাপত্তা নিশ্চায়নে মার্কিন প্রতিশ্রুতির কথা পুনর্ব্যক্ত করেন শেরম্যান। পাশাপাশি ব্যবসা বাণিজ্য ও বিনিয়োগ নিয়েও আলোচনা করেন দুজনে।



প্রাইস আরও জানান, “সম্প্রতি মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন এবং ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর মধ্যে অনুষ্ঠিত হওয়া বৈঠকের ফলাফল নিয়ে বিস্তর আলোচনা করেছেন জয়শঙ্কর এবং শেরম্যান। পাশাপাশি কোয়াড শীর্ষ সম্মেলনের সার্বিক ফল পর্যালোচনা করেন তাঁরা।”



মার্কিন এই কূটনীতিক বলেন, “বিশ্বব্যাপী নানান ইস্যুতে যুক্তরাষ্ট্র ও ভারতের ঘনিষ্ঠ সম্পর্কের গুরুত্ব তুলে ধরেছেন শেরম্যান। জয়শঙ্করও আঞ্চলিক ও বৈশ্বিক ইস্যুতে নিজেদের অবস্থান তুলে ধরেছেন।”



এর আগে, গতকাল ভারতীয় পররাষ্ট্র সচিব শ্রী হর্ষবর্ধন শ্রিংলার সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন মার্কিন পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী ওয়েন্ডি শেরম্যান। এসময়, সাম্প্রতিক আঞ্চলিক ভূ-রাজনৈতিক ইস্যু, দক্ষিণ এশিয়া বিষয়ক পররাষ্ট্রনীতি এবং ইন্দো-প্যাসিফিক অঞ্চলের সার্বিক অবস্থা, জলবায়ু পরিবর্তন ইস্যু নিয়ে মতবিনিময় করেন তাঁরা।